Monday, 11 December 2017

বিপ্লব - সাবজেক্ট টু মার্কেট রিস্ক

আজ রাতে ভালো করে জমিয়ে রান্না করো। মাংস ভাত খাব।

হঠাৎ?  অন্যদিন বুঝি খারাপ রান্না হয়?

জিতলাম না। আনন্দ হচ্ছে।

আজ কোন খেলা ছিল না তো।

আরে খেলা থাকবে কেন? বিপ্লব ছিল।

কোথায়? কিছু জানিনা তো। কী নিয়ে?

সব কি জানা যায়? খবর রাখতে হবে।

এই একটু বলো না কী করে জানলে সব বলো।  তাহলে পরের বার বিপ্লবের সময় আমিও যাবো।

শুনবে? শুনলে পুরোটা শোন না হলে মাঝপথে থামালে তাহলে এখনি বলে দাও।

না না। পুরোটাই বলো। দাঁড়াও তাহলে আমি ভাতটা বসিয়ে আসি। এসে শুনছি।

ঠিক এই সময় একটা ফোন এল।

হ্যালো

বলুন।

অভিনন্দন।  জয়ী হয়েছেন। আপনি ছিলেন তো আজ।

আমি না আমরা ছিলাম।

আচ্ছা কাল যে ঘটনা ঘটল তার পরিপ্রেক্ষিতে আপনার মতামত কী?

দেখুন এটা নিয়ে এত ব্যস্ত ছিলাম যে ওটা নিয়ে এখনো ভাবার সময় হয়নি। তবে দেখুন এখনও অবধি যা খবর আসছে তাতে বলা যায় এর  ভিত্তি যদি পর্বতের শিখর ভাবি সে দিক থেকে  হিমালয়ের মতো উচ্চ বলাই যায় আবার সমতলের যে ভিত্তিটা সেটাও ভারত মহাসাগরের মতো হয়ে যাবে।

আপনার মতামত কী হিমালয় না ভারত মহাসাগর।  

এভাবে তো বলা যাবে না। দুদিন ওয়াচ করি। পাল্লা-রোডে যাই। ওখানে কারা আসবে দেখি। তারপর সব বলতে পারব।

আপনি বিপ্লবে যোগ দেবার আগে কোনদিকে পাল্লা-ভারী দেখে নেন থুড়ী পাল্লা-রোড যান

হ্যাঁ অনেক ব্যাপার আছে। পাল্লা-রোড যাই। কারা সেখানে জড়ো হয়েছে খেয়াল রাখি।

অনেক দায়িত্ব। আর কী করেন

আঁতেলদের ভাও দেখি।

আঁতেল? মানে ইন্টেলেকচুয়াল?

ধুস। মিডিয়ায় আছেন ভাষায় দেখছি এক্কেবারে…

ওই দিশেহারা  বুদ্ধিজীবীদের আমরা আঁতেল বলি।

ঠিক করে নেবেন।

আচ্ছা আপনি কাদের কথা বলছেন।

দেখুন  আঁত্রেপেনাঁ মানে যেমন এন্টারপ্রেনর সেই লাইনে আপনাকে ভাবতে হবে। এখানে আঁতেল মানে হল আন তেল। অর্থাৎ যিনি তেল নিয়ে আসেন এক কথায় তেলের ব্যাপারী, তিনিই হলেন আঁতেল।

মানে কলু?

আজ্ঞে হ্যাঁ। তবে এ কলু সে কলু না। অনেক কলুষিত ব্যাপার। না গেলে বোঝা যায় না।

তা কোথায় আপনার এই আঁতেলদের জমায়েত যেখানে আপনি ভাও দেখেন।

আছে। সব বলে দিলে হবে। খুঁজুন না আপনাদের তো অনেক তথ্য বার করবার রাস্তা।

একটু যদি ক্লু দিতেন…

অন্যদিন হবে আজ  একটু ব্যস্ত আছি। রাখি এবার। ওকে পরে আবার যোগাযোগ করব।

কিগো আমি ফ্রি। বলো তোমার ম্যানিফেস্টো কোথায়?

ম্যানিফেস্টো আবার কী?

ওমা। ওই তো সংকল্পদা যা নিয়ে পাগল। রাতদিন শুধু ম্যানিফেস্টো নিয়ে পড়ে আছেন।

ধুস। আগেকার দিনে ওসব ছিল। এখন বিপ্লব করতে এসব লাগেনা।

কী লাগে তাহলে।

দেখো বিপ্লব হল একটা বাজার। এখানে অনেককিছু দেওয়া নেওয়া চলছে। তোমাকে খালি দেখে নিতে হবে কোন বিপ্লবে তোমার যোগদান সবচেয়ে কম ক্ষতি বা একদম ক্ষতি নেই অথচ এট্টুয়াট্টু লাভ পেয়ে গেলে।

বিপ্লব করলে ক্ষতি?

হ্যাঁ। ক্ষতি তো বটেই। এটা আগেও হয়েছে এখনও হচ্ছে। এই ব্যাপারটা কন্সট্যান্ট।

মানে তুমি সেইসব বীরদের  কথা বলছ? যারা আমাদের সুখের কথা ভেবে প্রাণ দিয়েছেন কেউ ঘর ছাড়া হয়েছেন, কারুর বাড়ী জ্বলে গেছে, কেউ দেশ ছাড়া হয়েছে...

হ্যাঁ হ্যাঁ ঠিক। তবে এখন তারা ইতিহাস। তাই ঐতিহাসিক ঘটনা আমাদের কাছে শিক্ষার ভিত্তি।

মানে?

মানে এই ধরো, কোন বিপ্লবে তোমার প্রাণ যাবার একটা সম্ভাবনা তুমি দেখতে পাচ্ছ কিন্তু ভবিষ্যতে দেখছ তোমার বীর বনে যাবার তেমন সম্ভাবনা নেই। তুমি পিছিয়ে গেলে। আবার কিছুই না করে দেখলে তুমি কদিনেই ওই সংকল্পদার আগে চলে গেলে কোন প্রকল্পে তাহলে সেখানে যুক্ত থাকাটাই শ্রেয়।

মানে তোমার কথায় আজকাল বিপ্লব মানে একটু মার্কেট স্টাডি এই তো।

শুধু তাই নয় যেটা তার থেকেও গুরুত্বপূর্ণ তা হল যে কোন বিপ্লব এখন সাব্জেক্ট টু মার্কেট রিস্ক। মিউচুয়াল ফাণ্ডের মতো কোথায় কবে উঠে যাচ্ছে আর কবেই বা মই সরে গিয়ে কেউ কোত্থাও নেই এইটা বোঝাই একটা বোঝা।

তাহলে তুমি যে বললে আজ বিপ্লবটায় জিতেছ। ওই খেলা জেতার মতো।

আবার কথা বাড়ায় চলো চলো মাংস ভাত সাঁটি। তারপর আবার এসব হবে।

****